Blog

১৬ থেকে ২০শে আগস্টঃ একটি সফল প্রতিরোধ এবং প্রতিশোধের চেপে রাখা ইতিহাস

১৬ই আগস্ট, ঠিক ৭৬ বছর আগে কলকাতা সহ এই বঙ্গের বিস্তীর্ণ অঞ্চলকে পাকিস্তানের অন্তর্ভুক্ত করার লক্ষ্যে এই দিনে কলকাতার বুকে সংঘটিত হয়েছিল এক নারকীয় গণহত্যা, যার নেতৃত্বে ছিল মুসলিম লীগ। কিন্তু ভাগ্যদেবী বোধহয় হিন্দুদের জন্য সে যাত্রায় অন্য কিছু লিখেছিলেন। তাই ১৬ তারিখ শুক্রবারে একতরফা হত্যালীলার শুরু মুসলিম লীগের হাতে হলেও ১৮, ১৯ ও ২০ … পড়তে থাকুন “১৬ থেকে ২০শে আগস্টঃ একটি সফল প্রতিরোধ এবং প্রতিশোধের চেপে রাখা ইতিহাস”

কৃণ্বন্তো বিশ্বমার্যম

মানবতা আর দানবতার সহাবস্থান মানেই মানবতার বিনাশ। যদি বুঝিয়ে সুঝিয়ে দানবের মনে শুভবুদ্ধির জাগরণ ঘটানো সম্ভব হত, তাহলে মা দুর্গা মহিষাসুরের মাথায় বাবা বাছা বলে মাতৃস্নেহে হাত বুলিয়ে দিতেন, তাকে বধ করতেন না; শ্রীরামচন্দ্র লঙ্কায় গিয়ে রাক্ষসদের সামনে নৈতিকতার প্রবচন দিতেন, রাবণকে গুষ্ঠিশুদ্ধু নিকেশ করতেন না; শ্রীকৃষ্ণ মামা কংসকে, শিশুপালকে হত্যা না করে বাঁশীর মধুর … পড়তে থাকুন “কৃণ্বন্তো বিশ্বমার্যম”

বাড়িতে নারকেল গাছ লাগানোর প্রস্তুতি নিন

হিন্দু ধর্মে নারকেল অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ। নারকেল হিন্দুদের সমস্ত ধর্মীয় আচার অনুষ্ঠানের একটি অপরিহার্য অঙ্গ। পুজোর সময়, ঘটে জল দিয়ে ভরাট করার পরে নারকেল উপরে স্থাপন করা হয়। এটি মঙ্গল গ্রহের প্রতীক। ঈশ্বরের কাছে নারকেল উৎসর্গ করা হয়। তাই ধার্মিক হিন্দু হয়ে বেঁচে থাকতে হলে বাড়িতে #নারকেল_গাছ🌴 লাগানো প্রত্যেক হিন্দুর অবশ্য কর্তব্য। নারকেল গাছ লাগাতে হলে … পড়তে থাকুন “বাড়িতে নারকেল গাছ লাগানোর প্রস্তুতি নিন”

ধর্মাবতার

ধর্মাবতার কহিলেন, “শোনো বাপু যথেষ্ট অর্থ সঞ্চয় করিয়া তুমি তোমার হত দরিদ্র প্রতিবেশীদের মনে ঈর্ষার সঞ্চার করিয়াছো। তোমার এই বিধ ঘোরতর অপরাধই ইহাদের তোমার সম্পদ লুন্ঠনে প্রবৃত্ত করিয়াছে। সুতরাং তোমার গৃহে সম্পন্ন ডাকাতিতে আমি ইহাদের কোনরূপ অপরাধই দেখিতে পাই না। অপরাধ তোমারই। “ গৃহস্থ কহিল, “কিন্তু ধর্মাবতার, লুণ্ঠনের সাথে সাথে এই ডাকাতেরা আমার বৃদ্ধ পিতাকে … পড়তে থাকুন “ধর্মাবতার”

পদানত জাতির মুক্তির ইতিহাস সর্বদাই লোহার কলম আর রক্তের কালি দিয়ে লেখা হয়েছে।

হিন্দুদের পরনির্ভর মানসিকতা কাটিয়ে উঠতে হবে। রাজ্য সরকার কী করছে? কেন্দ্র সরকার কী করছে? বিজেপি কী করছে? তৃণমূল কী করছে? ইত্যাদি প্রশ্নের অবশ্যই প্রয়োজন আছে। কিন্তু ওরা কিছু না করলে হিন্দু সমাজ অসহায়; এই মানসিকতা ঝেড়ে ফেলতে হবে। এক সময় দেশ পরাধীন ছিল। তখন স্বাধীনতার জন্য সমাজকেই লড়াই করতে হয়েছিল। বিদেশী সরকারের দমনপীড়নকে তুচ্ছ করেও … পড়তে থাকুন “পদানত জাতির মুক্তির ইতিহাস সর্বদাই লোহার কলম আর রক্তের কালি দিয়ে লেখা হয়েছে।”

প্রসঙ্গ মুসলিম এলাকায় সঙ্ঘশাখা

সঙ্ঘ প্রতিষ্ঠাতা একটা ন্যূনতম লক্ষ্যমাত্রা ইঙ্গিত করেছিলেন – শহরে ৩% এবং গ্রামাঞ্চলে ২% স্বয়ংসেবক তৈরি করতে পারলেই সঙ্ঘ আদর্শে সম্পূর্ণ সমাজকে প্রভাবিত করা সম্ভব হবে। আজ সঙ্ঘ সমগ্ৰ হিন্দু সমাজের গন্ডি পেরিয়ে মুসলমানদের মধ্যেও সরাসরি সঙ্ঘের কাজ শুরু করতে চলেছে বলে সংবাদ মাধ্যমে খবর প্রকাশিত হচ্ছে। সঙ্ঘের বিষয়ে যেকোনো সিদ্ধান্ত সঙ্ঘের অধিকারীরা নেবেন এটাই স্বাভাবিক। … পড়তে থাকুন “প্রসঙ্গ মুসলিম এলাকায় সঙ্ঘশাখা”

ফুরফুরার ইতিবৃত্ত

আজ থেকে প্রায় সাতশ বছর আগের ঘটনা। বঙ্গদেশের অধিকাংশ তখন মুসলিম শাসনাধীন। হুগলী জেলার বালিয়া বাসন্তী তখনও মুসলমানদের দাসত্ব স্বীকার করে নি। স্বাধীনচেতা বাগদীদের রাজত্ব সেখানে স্বমহিমায় প্রতিষ্ঠিত। রাজার নাম সম্ভবতঃ চন্দ্রনাথ কিংবা গোবিন্দচন্দ্র। কিন্তু মুসলিম শাসকদের চোখে তখন বিশ্বজুড়ে খিলাফত প্রতিষ্ঠার স্বপ্ন। ইসলামের শাসন প্রতিষ্ঠা করতে হবে পৃথিবীর সর্বত্র। তাই বালিয়া বাসন্তী কীভাবে কাফেরদের … পড়তে থাকুন “ফুরফুরার ইতিবৃত্ত”

অভিজিত কি আবার রাজিয়াকে ফিরে পাবে?

অভিজিত ঘোষ। পূর্ব বর্ধমান জেলার মেমারি থানার অন্তর্ভুক্ত একটি ছোট গ্রামের ছেলে। বয়স ২৬ বছর। ভালোবেসে বিয়ে করে ওই জেলার‌ই মন্তেশ্বরের মেয়ে রাজিয়া খাতুনকে। রাজিয়ার বয়স ২১ বছর। স্পেশাল ম্যারেজ অ্যাক্টে রেজিস্ট্রি হয় ২৯-০৯-২০২০ তারিখে। ২৮-১১-২০২০ তারিখে রাজিয়ার বাবা এবং মা অভিজিতের বাড়িতে আসে এবং তাকে আশ্বস্ত করে যে এই বিয়ে তারা মেনে নিয়েছে। অন্তঃসত্ত্বা … পড়তে থাকুন “অভিজিত কি আবার রাজিয়াকে ফিরে পাবে?”

পশ্চিমবঙ্গের ভূমিপুত্র কারা?

হরিয়ানায় বেসরকারি চাকরিতে ভূমিপুত্রদের জন্য ৭৫% সংরক্ষণ হল। পশ্চিমবঙ্গের ক্ষেত্রে প্রথম সমস্যা হল ভূমিপুত্র কারা সেটা সংজ্ঞায়িত করা। ১৯৪৬ এর নির্বাচনে এই বঙ্গদেশের ৯০% এর বেশি মুসলমান পাকিস্তানের দাবির পক্ষে মুসলিম লীগকে ভোট দিয়েছিল। ১৯৪৭ এর ২০ শে জুন অখণ্ড বঙ্গের মুসলিম প্রতিনিধিদের মধ্যে একজন‌ও পশ্চিমবঙ্গ গঠনের পক্ষে এবং পাকিস্তানে যুক্ত হ‌ওয়ার বিপক্ষে ভোট দেয় … পড়তে থাকুন “পশ্চিমবঙ্গের ভূমিপুত্র কারা?”

ঘরে ফিরলো সামিমা

আমাদের রাজ্যে জনসংখ্যার ভারসাম্য প্রতিদিন পরিবর্তিত হচ্ছে। ফলাফল স্বরূপ অর্থনৈতিক এবং রাজনৈতিক ক্ষমতার কেন্দ্র‌ও স্থানান্তরিত হচ্ছে প্রতিদিন। সবাই বলছে খেলা হবে। কিন্তু খেলার রাশ ধীরে ধীরে বাঙ্গালী হিন্দুর হাতের মুঠো থেকে বেরিয়ে যাচ্ছে এটা অনস্বীকার্য। হিন্দু সংহতি একটি সামাজিক সংগঠন হিসেবে এই ইস্যুতে আওয়াজ তুলছে, দীর্ঘদিন ধরে বাঙ্গালী হিন্দুদের সতর্ক করে চলেছে। কিন্তু এই অত্যন্ত … পড়তে থাকুন “ঘরে ফিরলো সামিমা”

লোড হচ্ছে…

Something went wrong. Please refresh the page and/or try again.


Follow My Blog

Get new content delivered directly to your inbox.

%d bloggers like this: